,
শিরোনাম:
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জে প্রতিপক্ষের হামলায় ১ জন নিহত, আটক ৭ ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ১ হাজার ৯১ ঘরের উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ড্রিম ফর ডিসএ্যাবিলিটির উদ্যোগে অসহায় শীতার্তদের জন্য শীতবস্ত্র বিতরণ ঢাকা থেকে চুরি হওয়া স্বর্ণ উদ্ধারে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় অভিযান, আটক ৩ ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় বাড়ছে ঠান্ডজণিত রোগের প্রকাপ নবীনগরে ব্যাডমিন্টন ফাইনাল খেলায় জায়েদ স্টার লাউর ফতেহপুর চ্যাম্পিয়ন ত্রিমুখী লড়াইয়ে জমজমাট আখাউড়া পৌরসভা নির্বাচনী মাঠ ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব ঢাকা ম্যারাথন ২০২১ এর এপস রেজিস্ট্রেশন কার্যক্রমের উদ্বোধন ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় করোনা ভাইরাস ভ্যাকসিন প্রদান সংক্রান্ত কমিটির সভা ব্রাহ্মণবাড়িয়ার মেধাবী ছাত্র প্রয়াত আতিকুর রহমানের স্মরণে স্মৃতি গোল্ড কাপ টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত

চলমান মামলা নিয়ে সংবাদ প্রকাশে বাধা নেই’

স্টাফ রিপোর্টার : চলমান যেকোন মামলা নিয়ে গণমাধ্যমের সংবাদ প্রকাশ করতে কোন বাধা নেই বলে জানিয়েছেন আইন, বিচার ও সংসদবিষয়ক মন্ত্রী আনিসুল হক। রবিবার (১৯ মে) সচিবালয়ে সুইজারল্যান্ড ও সুইডেনের রাষ্ট্রদূত এবং জাতিসংঘ ও ইউএনডিপির প্রতিনিধিদের সঙ্গে বৈঠকের পর সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা জানান।

তিনি বলেন, ‘চলমান যেকোন মামলা নিয়ে গণমাধ্যমের রিপোর্ট করতে বাধা নেই, তবে মামলা হয়েছে কিন্তু কার্যক্রম চলছে না, এ সব মামলার বিষয়ে কোনো মতামত দেওয়া যাবে না। আমি আপনাদের একটি বিষয় পরিষ্কার বলতে চাই, সাব-জুডিস (বিচারাধীন মামলা) কথাটার একটা অর্থ আছে। সাব জুডিস বলতে আমি যেটা বুঝি সেটা আগে বলি, এরপর ওটা পরিষ্কার করি। সাব-জুডিস হচ্ছে এমন মামলা, যেটা বিচারাধীন রয়েছে। কিন্তু বিচার কার্যক্রম চলছে না। মামলা যেটা বিচারাধীন আছে, কিন্তু বিচার কার্যক্রম চলছে না এমন মামলার ব্যাপারে মতামত দেওয়ার বিষয়টিই বলেছেন সুপ্রিম কোর্ট। তারা বলেছেন, এই সব মামলার ব্যাপারে মতামত না দিতে।’

তিনি আরও বলেন, ‘একটা মামলা চলছে, সেটার ব্যাপারে রিপোর্টিং বন্ধ করতে আমরা মনে হয় না সুপ্রিম কোর্ট এই কথা বলেছে। আপনারা মামলার রিপোর্টিং করতে পারেন, তবে যে মামলাটা বিচারধীন আছে সেই মামলাটা নিয়ে আপনারা মতামত দেন তাহলে যেটা হবে সেটা হচ্ছে, মিডিয়াতেই একটা ট্রায়াল হয়ে যাবে। বিজ্ঞ বিচারক বা বিচারপতির এই ব্যাপারে একটু চাপ সৃষ্টি হয় সেজন্য তারা এ কথা বলেছেন। আমি যে বিষয়টি অত্যন্ত পরিষ্কার করে দিতে চাই। রিপোর্টিং আর মতামত আলাদা করতে হবে। আলাদাভাবে দেখতে হবে। যে মামলা চলছে সেই মামলার রিপোর্টিং করতে কোনো বাধা নেই। কিন্তু যে মামলা কার্যক্রম চলছে না কিন্তু একটা মামলা আছে, এই মামলার বিষয়ে কোনো মতামত দেওয়া থেকে বিরত থাকতে বলেছেন। ওনারা (বিচারপতি) আমাদের ডিরেক্টলি বলেননি। আমি ওনাদের কথা থেকে এটা বুঝেছি।’

 

উল্লেখ্য, গত ১৬ মে বিচারাধীন মামলা সংক্রান্ত বিষয়ে সংবাদ পরিবেশন থেকে বিরত থাকার জন্য সাংবাদিকদের প্রতি অনুরোধ জানিয়ে একটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেন হাইকোর্ট। ব্যাংক ঋণসংক্রান্ত বিষয়ে ২০১৭ সালের হাইকোর্টের একটি বেঞ্চের দেওয়া আদেশের বিরুদ্ধে ন্যাশনাল ব্যাংকের একটি মামলায় আপিল বিভাগে শুনানিকে কেন্দ্র করে বিভিন্ন মিডিয়ায় প্রকাশিত ও প্রচারিত প্রতিবেদন সুপ্রিম কোর্টের নজরে আসার পর এই বিজ্ঞপ্তি জারি করেছেন আদালত।

ওয়েব ডিজাইন ঘর

Sorry, no post hare.

Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com