,
শিরোনাম:
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিজয়নগরে পূর্ব বিরোধের জের ধরে দুই পক্ষের সংঘর্ষে অর্ধশতাধিক লোক আহত ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় বিভিন্ন ট্রেনের টিকেটসহ পাঁচ কালোবাজারি আটক, প্রায় অর্ধলক্ষ টাকা জব্দ আপেক্ষিক অর্থে বলা হয়েছে ৫০ বছর সময় লাগলেও সুষ্ঠ তদন্ত ও প্রকৃত অপরাধীদের ধরা হবে..ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আইনমন্ত্রী৷ ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় গণসংবর্ধণার জবাবে গণপূর্ত মন্ত্রী মোকতাদির চৌধুরী এমপি মজুদদারদের জরিমানা নয়, কারাগারে পাঠানোর অনুরোধ জানাই ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মাদক সেবন করে অশ্লীল আচরন করায় সাতজনকে কারাদন্ড অবৈধভাবে খাল কাটা ও ব্যক্তিগত রাস্তা নির্মানের প্রতিবাদে বিজয়নগরে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল বাঞ্ছারামপুরে পুকুরে মিললো কিশোরের হাত-পা বাধাঁ লাশ৷ রেডক্রিসেন্ট সোসাইটির উদ্যোগে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় শীতার্ত মানুষের মধ্যে ৮০০ কম্বল বিতরণ ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে চুরি করার অপবাদে যুবককে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় বিলের জমি থেকে অটো চালকের মরদেহ উদ্ধার

শহীদ ধীরেন্দ্রনাথ দত্তের নামে বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার দাবি ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় একুশের আলোচনা সভায়

খবর সারাদিন রিপোর্ট : ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মহান শহীদ দিবস এবং আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে ‘ভাষা আন্দোলন ও ধীরেন্দ্রনাথ দত্ত’ শীর্ষক এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। অনুশীলন সাংস্কৃতিক কেন্দ্র, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার উদ্যোগে  শনিবার সকাল সাড়ে ১০টায় স্থানীয় শহীদ ধীরেন্দ্রনাথ দত্ত স্মৃতি পাঠাগারে আয়োজিত সভায় সভাপতিত্ব করেন অনুশীলনের আহবায়ক সাংবাদিক আবদুন নূর ।
আলোচনায় অংশ নেন বীর মুক্তিযোদ্ধা ও জেলা জাসদ সভাপতি অ্যাডভোকেট আখতার হোসেন সাঈদ, বীর মুক্তিযোদ্ধা  মতিলাল বণিক, বাংলাদেশ জাসদের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক হোসাইন আহমেদ তফছির, জেলা ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি অ্যাডভোকেট কাজী মাসুদ আহমেদ, জেলা ছাত্রমৈত্রীর প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি প্রদ্যোত নাগ, জেলা উদীচীর সভাপতি জহিরুল ইসলাম স্বপন, জেলা  তেল গ্যাস বিদ্যুৎ বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটির সদস্য সচিব অ্যাডভোকটে মোঃ নাসির, জেলা কৃষক-খেতমজুর সমিতির আহবায়ক আবদুস সোবহান মাখন, অনুশীলনের সদস্য সচিব ওয়াহিদ শামীম, জেলা ছাত্রমৈত্রীর সাধারণ সম্পাদক সানিউর রহমান, গণসাংস্কৃতিক মৈত্রীর আহবায়ক ঈসা ইসলাম প্রমুখ।
আলোচনা সভায় বক্তারা বলেন, তৎকালীন পাকিস্তান গণপরিষদে উর্দু এবং ইংরেজির পাশাপাশি বাংলাকে গণপরিষদের কার্যবিবরণীর ভাষার মর্যাদা দানের প্রস্তাবের মধ্য দিয়ে ভাষা আন্দোলনের সূত্রপাত করেছিলেন ধীরেন্দ্রনাথ দত্ত। ভাষা আন্দোলন বাংলাদেশ নামক জাতি রাস্ট্র প্রতিষ্ঠার প্রথম সোপান। সেজন্যই একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধের প্রথম দিকেই পাক হানাদার বাহিনীর হাতে তাকে পরিবারের সদসদ্যদেরসহ নৃশংসভাবে শহীদ হতে হয়েছিল। তার স্মৃতিকে আগামী প্রজন্মের কাছে তুলে ধরার জন্য জাতীয়ভাবে স্বাধীনতার ৫০ বছরেও তেমন কিছুই করা হয়নি। বক্তারা জাতীয়ভাবে শহীদ ধীরেন্দ্রনাথ দত্তের জন্মও মৃত্যুবার্ষিকী পালন,  শহীদ ধীরেন্দ্রনাথ দত্তের নামে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় একটি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার  দাবি জানান।
ওয়েব ডিজাইন ঘর

Sorry, no post hare.