,
শিরোনাম:
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিজয়নগরে পূর্ব বিরোধের জের ধরে দুই পক্ষের সংঘর্ষে অর্ধশতাধিক লোক আহত ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় বিভিন্ন ট্রেনের টিকেটসহ পাঁচ কালোবাজারি আটক, প্রায় অর্ধলক্ষ টাকা জব্দ আপেক্ষিক অর্থে বলা হয়েছে ৫০ বছর সময় লাগলেও সুষ্ঠ তদন্ত ও প্রকৃত অপরাধীদের ধরা হবে..ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আইনমন্ত্রী৷ ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় গণসংবর্ধণার জবাবে গণপূর্ত মন্ত্রী মোকতাদির চৌধুরী এমপি মজুদদারদের জরিমানা নয়, কারাগারে পাঠানোর অনুরোধ জানাই ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মাদক সেবন করে অশ্লীল আচরন করায় সাতজনকে কারাদন্ড অবৈধভাবে খাল কাটা ও ব্যক্তিগত রাস্তা নির্মানের প্রতিবাদে বিজয়নগরে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল বাঞ্ছারামপুরে পুকুরে মিললো কিশোরের হাত-পা বাধাঁ লাশ৷ রেডক্রিসেন্ট সোসাইটির উদ্যোগে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় শীতার্ত মানুষের মধ্যে ৮০০ কম্বল বিতরণ ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে চুরি করার অপবাদে যুবককে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় বিলের জমি থেকে অটো চালকের মরদেহ উদ্ধার

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় রেলমন্ত্রী আগামী সেপ্টেম্বরে উদ্বোধন হচ্ছে আখাউড়া আগরতলা রেলপথ প্রকল্প

খবর সারাদিন রিপোর্ট : রেলমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন বলেছেন, আখাউড়া-আগরতলা রেলপথ দু’দেশের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। যা দিয়ে ভারতের সাথে আরো একটি আন্তঃবিভাগ যোগযোগ ব্যবস্থা স্থাপিত হবে। এতে দু’ দেশের জনগন উপকৃত হবে। আগামী জুন মাসের মধ্যে প্রজেক্টটি শেষ হবার সময় নির্ধারণ করা আছে। লাইন ও ¯øীপার বসানোর কাজও শেষ আমরা আশা করছি জুনের মধ্যে কাজ শেষ হলে আগামী সেপ্টেম্বর মাসে ভারতের প্রধানমন্ত্রী ও বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী এ রেলপথের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করবেন। তিনি বুধবার বিকেলে আখাউড়ার খারকুট এলাকায় আখাউড়া-আগরতলা রেলপথ পরিদর্শন কালে সাংবাদিকদের এসব কথা জানান। তিনি আরো বলেন, এ রেলপথের মাধ্যমে দেশের নতুন একটি অর্থনৈতিক দ্বার উন্মোচিত হবে। রেলপথে পন্য পরিবহনের ফলে খরচ অনেকাংশে কমে আসবে। রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলে বাংলাদেশের বিভিন্ন অঞ্চলে ডুয়েলগেজ রেলপথ না থাকায় এখনই আগরতলা থেকে কলকাতা সরাসরি ট্রেন চলাচল করছে না। তবে আখাউড়া থেকে টঙ্গী পর্যন্ত ডুয়েলগেজ রেলপথ নির্মান হলে সরাসরি আগরতলা থেকে কলকাতা পর্যন্ত ট্রেনচলাচল চালুকরা সম্ভব হবে। এদিকে পূর্বাঞ্চল রেলওয়ের বিদ্যমান যাত্রী চাপ কমাতে আগামী সেপ্টেম্বর মাসে ঢাকা-চট্টগ্রাম রেলপথে আরো অন্তত চারটি ট্রেন দেয়া হবে বলে জানান রেলপথ মন্ত্রী।

আখাউড়া আগরতলা রেলপথ প্রকল্প পরিদর্শনকালে আখাউড়া-আগরতলা রেলপথ প্রকল্পের প্রকল্প পরিচালক মো: আবু জাফর মিয়া, টেক্সমেকো রেল এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং এর কান্ট্রি ডিরেক্টর শরৎ শর্মা, ব্রাহ্মণবাড়িয়া অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক সার্বিক মো: রুহুল আমিনসহ রেলের উর্দ্ধতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।
ওয়েব ডিজাইন ঘর

Sorry, no post hare.