,
শিরোনাম:
বিএনপি তাদের শাসনামলে যুদ্ধাপরাধী ও রাজাকার আলবদরদের সঙ্গে নিয়ে পাকিস্তানের দালাল হয়ে বাংলাদেশের জনগণকে শোষণ ও অত্যাচার করত : আইন মন্ত্রী আনিসুল হক ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ম্যারাথন প্রতিযোগীতা অনুষ্ঠিত ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় টিসিবির পণ্য বিক্রয় মন্দির ভিত্তিক শিশু ও গণশিক্ষা কার্যক্রমের গুরুত্ব ব্যাপক উপজেলা পরিষদের নির্বাচন আখাউড়ায় নির্বাচনী সভায় ভুড়িভোজের আয়োজন \ বিরিয়ানি মাদরাসায় দিলেন ম্যাজিস্ট্রেট ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মোটরসাইকেল ও সিএনজি অটোরিক্সার মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত-১/ আহত-৫ এসএসসি পরীক্ষার ফলাফল-জিপিএ-৫-এ ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় অন্নদা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় সেরা ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আসামী ধরতে গিয়ে নারীর কপালে পিস্তল ঠেকিয়ে গুলি করল ডিবি ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা ছাত্রলীগের কর্মী সমাবেশ চলাকালে সংঘর্ষে ৩ জন আহত স্মার্ট বাংলাদেশ গঠনের লড়াইয়ে ছাত্রলীগকে সর্বতোভাবে পাশে থাকার আহ্বান-গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় নারী বিদ্বেষীর দায়ের কুপে নিহত ১, আহত ৫

IMG 20230719 WA0016

খবর সারাদিন রিপোর্ট : ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় এক নারী বিদ্বেষী যুবকের দায়ের কুপে আরজুদা (৭৫) নামে এক নারী নিহত হয়েছে। বুধবার দুপুরে শহরের ভাদুঘর টিএন্ডটি পাড়া এলাকায় রেল লাইনের পাশে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় আরো ৩ নারী ও ২ পুরুষ গুরুতর আহত হয়েছেন। আহতরা হলেন, ভাদুঘর এলাকার মির্জা জাহান মিয়ার স্ত্রী রাবেয়া (৫৫), হানিফ মিয়ার স্ত্রী খালেদা বেগম (৪৪), মরহুম আবুল হোসেনের ছেলে সাজু মিয়া (৫০), আব্দুল হেকিমের ছেলে মোখলেছ (৪৫) ও তাহের মিয়ার মেয়ে নয়ন মনি (১৪)। এর মধ্যে চারজনকে গুরুতর আহতাবস্থায় ঢাকায় প্রেরণ করা হয়েছে। এ ঘটনায় পুলিশ ঘাতক শিহাবকে আটক করেছে। সে ভাদুঘর এলাকার জামাল মিয়ার ছেলে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, শিহাব নারী বিদ্বেষী। সে রাস্তায় চলাফেরা করার সময় মানুষদের অকথ্য ভাষায় গালাগালি করত ও টাকা চাইত। টাকা না দিলে সে তাদের উপর হামলা চালিয়ে রক্তাক্ত জখম করত। বুধবার সে ৪ জন মহিলাকে একত্রে হেটে যেতে দেখে তাদের উপর চড়াও হয়। পরে সে তার হাতে থাকা দা দিয়ে এলোপাথারি কুপাতে থাকে। এ সময় স্থানীয়রা তাদেরকে রক্ষা করতে এলে তারাও হামলায় আহত হয়। পরে স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক আহত আরজুদা বেগম, রাবেয়া, খালেদা বেগম, সাজু মিয়া ও মোখলেছ মিয়াকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় প্রেরণ করে। ঢাকায় নেয়ার পথে আরজুদা বেগম মারা যায়। এদিকে ঘটনার পরপর এলাকা জুড়ে ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়। ঘটনাস্থলে হাজার মানুষের ঢল নামে। পুলিশের একটি বিশেষ টিম ঘটনার অনুসন্ধানে সকাল থেকেই সরজমিনে তদন্ত চালিয়ে যাচ্ছে।

এ বিষয়ে সদর মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) সোহরাব আল হোসাইন জানান, শিহাব নারী বিদ্বেষী ও উগ্রপন্থি। ঘটনার সময় স্থানীয়রা তাকে আটক করে পুলিশের কাছে সোপর্দ করে। বর্তমানে সে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। এ ঘটনায় মামলা দায়েরের কাজ প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। ঘাতক শিহাব সুস্থ হওয়ার পর ঘটনার আরো তথ্য জানা যাবে।

শেয়ার করুন

Sorry, no post hare.